প্রত্যাহারের পরেও সংবর্ধনা নিলো বিতর্কিত এসপি হারুন

0
41

সদ্য প্রত্যাহার হওয়া বিতর্কিত পুলিশ সুপার হারুন আর রশিদ নারায়ণগঞ্জ থেকে বিদায় নেয়ার আগে সংবর্ধনা গ্রহণ করেছেন।

বৃহস্পতিবার (৭ নভেম্বর) দুপুরে নারায়ণগঞ্জ জেলা পুলিশ প্রশাসনের পক্ষ থেকে পুলিশ লাইন্সে আনুষ্ঠানিকভাবে তাকে বিদায়ী সংবর্ধনা দেয়া হয়।

এদিকে চাঁদা দাবির অভিযোগ ওঠা পুলিশ সুপার মোহাম্মদ হারুন অর রশিদের ব্যাপারে তদন্ত করা হবে বলে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ঘোষণা দিলেও অভিযোগ অস্বীকার করেছেন তিনি।

অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখতে গিয়ে সাবেক এসপি হারুন অর রশীদ গত পহেলা নভেম্বর বিসিবি’র পরিচালক শওকত আজিজ রাসেলের স্ত্রী ও ছেলেকে তুলে নিয়ে আসার বিষয়ে জানান, গাড়ি তল্লাশি করে বিপুল পরিমাণ মাদকদ্রব্য পাওয়ার কারণে ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের অনুমতি নিয়ে তার বাড়িতে অভিযান চালানো হয়েছে। এরপর জিজ্ঞাসাবাদের জন্য শওকত আলী রাসেলের ছেলে ও স্ত্রীকে নারায়ণগঞ্জের ডিবি পুলিশের কার্যালয়ে নিয়ে আসা হয় এবং জিজ্ঞাসাবাদ শেষে তাদের মুচলেকা দিয়ে ছেড়ে দেয়া হয়েছিল।

তিনি বলেন, আমার বিশ্বাস ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষ অবশ্যই বিষয়টি তদন্ত করে দেখবেন এবং তাতে অভিযোগের সত্যতা বের হয়ে আসবে। এসময় নিজেকে নির্দোষ দাবি করে কান্নায় ভেঙ্গে পড়ে এস.পি হারুন বলেন, আমি মনে করি আমি কোন ভুল করি নি। তদন্তেই সেটা প্রমাণ হবে।

এস.পি হারুনের বিদায় সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জেলা প্রশাসক জসীম উদ্দিন, জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আনোয়ার হোসেন, র‌্যাব-১১ ব্যাটালিয়ানের অধিনায়ক (সিও) কাজী শামসের উদ্দিন, নারায়ণগঞ্জ প্রেস ক্লাবের সভপতি এ্যাডাভোকেট মাহাবুবুর রহমান মাসুম, নারায়ণগঞ্জ চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাষ্ট্রির সভাপতি খালেদ হায়দার খান কাজল, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মনিরুল ইসলাম ও নুরে আলমসহ প্রশাসনের উর্ধ্বতন কর্মকর্তারা।

এর আগে হারুন অর রশিদ এসপি হিসেবে পদোন্নতিপ্রাপ্ত নারায়ণগঞ্জের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মনিরুল ইসলামের কাছে তার দায়িত্ব বুঝিয়ে দিয়ে এসপি অফিস থেকে বিদায় নেন।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.