ইবিতে বঙ্গবন্ধু স্মৃতি সংসদ ছাত্র ফেডারেশন এর কমিটি ঘোষণা সভাপতি এহছানুল হক ইশান সাধারণ সম্পাদক মুজাহিদুল ইসলাম

0
28

 

ইবি প্রতিনিধি:
ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে (ইবি) বঙ্গবন্ধু স্মৃতি সংসদ ও বঙ্গবন্ধু স্মৃতি পাঠাগার ছাত্র ফেডারেশন বাংলাদেশ ইবি শাখার কমিটি ঘোষণা করা হয়েছে। এতে সভাপতি হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন ২০১৬-১৭ শিক্ষাবর্ষের রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থী এহছানুল হক ইশান এবং সাধারণ সম্পাদক হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন একই শিক্ষাবর্ষের পরিসংখ্যান বিভাগের শিক্ষার্থী মুজাহিদুল ইসলাম।

শুক্রবার (৩১ জুলাই) বঙ্গবন্ধু স্মৃতি সংসদ ও বঙ্গবন্ধু স্মৃতি পাঠাগার ছাত্র ফেডারেশন বাংলাদেশ কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের সভাপতি শহীদুল ইসলাম শান্ত ও সাধারণ সম্পাদক ইঞ্জিনিয়ার শাহনেওয়াজ খান মিলন স্বাক্ষরিত বিজ্ঞপ্তিতে এ কমিটির অনুমোদন দেওয়া হয়।

কমিটিতে অন্যান্য সদস্যদের মধ্যে সহসভাপতি হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন ইমরান হোসেন, ইলাহী রহমান, তুহিন হোসেন, ইমরুল কায়েস, রাশেদুল ইসলাম, শাহেদ হাসান, খান বায়েজিদ, মোঃ শাহিন, আশিকুর রহমান, রবিউল ইসলাম এবং যুগ্মসাধারণ সম্পাদক হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন অনুপ বিশ্বাস, রাশেদুল মোল্লা, তারেক, রাজু আহমেদ, হিমেল সায়েদ, শাহিনুর ইসলাম, সজিব হোসেন, ইমরান নাজির, ফিরোজ হোসেন, নূর মাহমুদ।
২২ সদস্য বিশিষ্ট এ কমিটিকে আগামী এক বছরের জন্য অনুমোদন দিয়েছে কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদ।

ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের নবনির্বাচিত এ কমিটির সাধারণ সম্পাদক মুজাহিদুল ইসলাম বলেন, “বঙ্গবন্ধু স্মৃতি সংসদ ও বঙ্গবন্ধু স্মৃতি পাঠাগার ছাত্র ফেডারেশন বাংলাদেশ ইবি শাখার প্রতিষ্ঠাকালীন সাধারণ সম্পাদক হিসেবে তরুণ প্রজন্মকে মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় উদ্বুদ্ধ করে বঙ্গবন্ধুর আদর্শ গণতান্ত্রিক সঠিক রাজনৈতিক চর্চার মাধ্যমে রাজনৈতিক সচেতনতা বৃদ্ধি করাই হবে আমাদের প্রধান উদ্দেশ্য। এই মহান উদ্দেশ্যকে বাস্তবায়ন করার লক্ষ্যে সকলের সহযোগিতা নিয়ে সংগঠনের কার্যক্রম পরিচালনা করতে চাই।”

উল্লেখ্য, বঙ্গবন্ধুর ব্যক্তিজীবন, রাজনৈতিক জীবন ও কর্ম জীবনের দর্শন বিষয়ক চর্চা গবেষণা ও প্রকাশনার মাধ্যমে সংগঠনের সদস্যগণকে সৃজনশীল ও গণমুখী করে গড়ে তোলা সেই সাথে তরুণ প্রজন্মকে মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় উদ্বুদ্ধ করে বঙ্গবন্ধুর আদর্শ গণতান্ত্রিক রাজনৈতিক চর্চার মাধ্যমে রাজনৈতিক সচেতনতা বৃদ্ধি করার লক্ষ্যে ১৯৯৪ সালের ১০ই মে বঙ্গবন্ধু স্মৃতি সংসদ ছাত্র ফেডারেশন বাংলাদেশ এর যাত্রা শুরু হয়। বর্তমানে দেশের বিভিন্ন জেলা ও উপজেলা তে সংগঠনের কার্যক্রম চলমান রয়েছে।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.